সোমবার, নভেম্বর ১৮, ২০১৯
Home > গ্যালারীর খবর > কক্সবাজারে রোহিঙ্গাদের জন্য ১৫০০ ঘর বানিয়েছে তুরস্ক

কক্সবাজারে রোহিঙ্গাদের জন্য ১৫০০ ঘর বানিয়েছে তুরস্ক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ॥
কক্সবাজারের শরণার্থী শিবিরে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের জন্য অন্তত ১৫০০ ঘর বানিয়েছে তুরস্কের একটি বেসরকারি সংস্থা। রাজধানী আঙ্কারাভিত্তিক ডেনিজ ফেনেরি অ্যাসোসিয়েশনের সমন্বয়কের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে তুরস্কের সরকারি বার্তা সংস্থা আনাদোলু।

ডেনিজ ফেনেরি অ্যাসোসিয়েশনের সমন্বয়ক হামিত কান্ত সোমবার আনাদোলুকে বলেন, কক্সবাজারে রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরের পার্শ্ববর্তী তিনটি এলাকায় ১৬০০টি ঘর নির্মাণের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। এর মধ্যে ৭০০টি পানির কল ও ১০টি মসজিদও রয়েছে।

রোহিঙ্গাদের মানবেতর জীবন যাপনের পরিস্থিতির উন্নতির জন্য এসব ঘর নির্মাণ করা হয়েছে বলে জানান সংস্থাটির সমন্বয়ক হামিত কান্ত। তিনি বলেন, গোটা বিশ্বে প্রায় ৩০ লাখ রোহিঙ্গা মুসলিম শরণার্থী রয়েছে, যার অর্ধেকের বেশি বসবাস করছে কক্সজারের শরণার্থী শিবিরগুলোতে।

হামিত কান্ত আরও জানান, রোহিঙ্গা শরণার্থীদের খাদ্য, পানি, শিক্ষা, বাসস্থানসহ প্রার্থনা করার সুবিধা দিতে ধারবাহিকভাবে তাদেরকে সহযোগিতা করে আসছে তুরস্কের বিভিন্ন বেসরকারি সংস্থা। রোহিঙ্গাদের জন্য বাশ দিয়ে নিয়ে নির্মিত এসব ঘরের আয়তন ২১৫ বর্গফুট বলেও জানান তিনি।

কক্সবাজারে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা শরণার্থীদের জন্য ঘর নির্মাণ করা ছাড়াও সংস্থাটির পক্ষ থেকে ১৩৫০ রোহিঙ্গা পরিবারকে খাবার ও কম্বল বিতরণ করা হয়।