রবিবার, জানুয়ারি ২৬, ২০২০
Home > গ্যালারীর খবর > গাজীপুর সদর দলিল লেখক ও ভেন্ডার সমিতির নির্বাচনের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন

গাজীপুর সদর দলিল লেখক ও ভেন্ডার সমিতির নির্বাচনের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার ॥
গাজীপুর সদর দলিল লেখক ও ভেন্ডার কল্যাণ সমিতির নির্বাচনের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বৃহস্পতিবার দুপুরে গাজীপুর সদর দলিল লেখক ও ভেন্ডার কল্যাণ সমিতির হলরুমে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন, সমিতির সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এ কে এম মনিরুজ্জামান সোহেল। তিনি বক্তব্যে বলেন, সমিতির গঠনতন্ত্রে আছে এডহক কমিটি গঠনের দুই মাসের মধ্যে নির্বাচন দিতে হবে। এডহক কমিটি গঠন করা হয়েছে প্রায় দুই বছর নির্বাচন দিতে বা কমিটি উপহার দিতে ব্যর্থ হয়েছেন। তিনি অনতিবিলম্বে নতুন কমিটি গঠনের জন্য নির্বাচন কিংবা সিলেকশনের মাধ্যমে একটি নতুন কমিটি গঠনের জন্য আহ্বান জানান।
এ সময় সাবেক সভাপতি মজিবুর রহমান. সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো: ফারুক হোসেন, সেকান্দার হোসেন, সাবেক সহ সভাপতি মাসুদুল কবির, সাবেক ক্রিয়া সম্পাদক মোবারক হোসেন, প্রচার সম্পাদক মজিবুর রহমান, ফারুক হোসেন ঢালি, সাইফুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। সমাবেশে জানানো হয়, গত ২০১৫ সালের ১৫ ডিসেম্বর নির্বাচনের মাধ্যমে গাজীপুর সদর দলিল লেখক ও ভেন্ডার কল্যাণ সমিতির সর্ব শেষ কমিটি গঠন করা হয়। এতে মজিবুর রহমানকে সভাপতি এবং মো: ফারুক হোসেনকে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করা হয়।
উল্লেখ্য গত ১৪/১২/২০১৭ খ্রিস্টাব্দে তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি এডহক কমিটি গঠন করা হয়েছে। এ কমিটির আহবায়ক জামাল উদ্দিন খান। অন্য সদস্যরা যথাক্রমে আব্দুল হাই ও ওসমান গনি খান।
এ বিষয়ে মনিরুজ্জামান সোহেল বলেন, গঠনতন্ত্র অনুযায়ী এডহক কমিটির সদস্যরা নির্বাচনে প্রার্থী হতে পারবেন না। অথচ এডহক কমিটির এক প্রভাবশালী সদস্য সভাপতি হতে বিভিন্ন রাজনীতিকের কাছে লবিং গ্রোপিং করে যাচ্ছেন। তিনি আরো বলেন, আমি যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে একবার নির্বাচিত হয়েছিলাম। পরে আরো দু’বার সভাপতি প্রার্থী হয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছি।
এডহক কমিটির আহবায়ক জামাল উদ্দিন খান বলেন, এডহক কমিটির মেয়াদ এক থেকে দেড় মাস যাওয়ার পর সাব-রেজিস্ট্রার মোঃ মনিরুল ইসলাম সেই এডহক কমিটি বাতিল করে পাঁচ সদস্য বিশিষ্ট একটি উপদেষ্টা কমিটি গঠন করেন। সেই উপদেষ্টা কমিটির এক নম্বর সদস্য সাব-রেজিস্ট্রার মোঃ মনিরুল ইসলাম। সেই উপদেষ্টা কমিটির সদস্য আমি নিজেও। তিনি আরো বলেন, গাজীপুর সিটি মেয়র এ্যাড. জাহাঙ্গীর আলম সাহেব চলতি মাসের মাঝামাঝির দিকে সকলকে নিয়ে একটি নতুন কমিটি গঠনের আশ্বাস দিয়েছেন।